শাহীন ক্যাডেট কোচিং

 

ভর্তি সংক্রান্ত তথ্য:

টাঙ্গাইলসহ সকল শাখার জন্য প্রযোজ্য

 

ভর্তি ফরম বিতরণ ও জমা: ১ ডিসেম্বর থেকে শুরু হবে।

ক্লাস শুরু: ১ম ব্যাচ জানুয়ারীর ১ম সপ্তাহ ও ২য় ব্যাচ জানুয়ারীর শেষ সপ্তাহ থেকে শুরু হবে।

 

 

 

 

ক্যাডেট কলেজে চূড়ান্তভাবে চান্স পাওয়ানোর পাশাপাশি শিক্ষার্থীদের ইংরেজি ও গণিতে ভিত্তি মজবুত করাই আমাদের লক্ষ্য।

 

                                      
  

 

 বিশেষ দিকসমূহ: 

 সপ্তাহে ৫ দিন ক্লাস টেস্ট এবং ১ দিন সাপ্তাহিক মূল্যায়ন পরীক্ষা। প্রতিদিন স্কুলের বিপরীত শিফটে প্রায় ৪ ঘন্টা এবং স্কুল বন্ধের সময় ৬ থেকে ৭ ঘন্টা করে ক্লাস। তাছাড়া ডে-কেয়ার ও নাইট ব্যবস্থাও রয়েছে।

 

⇛ সাপ্তাহিক পরীক্ষা শেষে শিক্ষার্থীর ভুলগুলো চিহ্নিতকরণ সাপেক্ষে পুনরায় বুঝানো হয় এবং পূর্বে শেখা পাঠগুলো ভালভাবে মনে রাখতে পর্যালোচনামূলক পরীক্ষা গ্রহণ। প্রতিটি পরীক্ষা শেষে শিক্ষার্থীদের মেধাভিত্তিক ফলাফল প্রদান ও অভিভাবকদের অবহিতকরণ।

 অভিজ্ঞতাসম্পন্ন শিক্ষকের পাশাপাশি ক্যাডেট কলেজের সাবেক অধ্যাপক ও অধ্যক্ষের সার্বিক তত্ত্বাবধানে পাঠদান ও ভর্তি পরীক্ষার অনুরূপ একাধিক মডেল টেস্ট গ্রহণ।

⇛ শাহীন ক্যাডেট কোচিং-এর কার্যকর নিজস্ব পাঠ পদ্ধতি, পাঠ আদায় পদ্ধতি ও প্রয়োগ পদ্ধতির মাধ্যমে শিক্ষার্থীকে গড়ে তোলা হয় এবং শিক্ষা বর্ষের শেষে ক্যাডেট কলেজে ভর্তি পরীক্ষার অনুরূপ প্রশ্নে কমপক্ষে ১৫টি মডেল টেস্ট এবং ৫০টি মডেল প্রশ্নের সমাধান করানোর ব্যবস্থা।

⇛ শুধুমাত্র পাঠদানই নয় ভর্তি কার্যক্রমের ক্ষেত্রে ভর্তি ফরম সংগ্রহ, ফরম পূরণ ও জমা দান, মেডিক্যাল চেকআপ এবং লিখিত পরীক্ষায় নির্বাচিতদের মৌখিক পরীক্ষাসহ চূড়ান্তভাবে নির্বাচিত হওয়ার পূর্ব পর্যন্ত সার্বিক দায়িত্ব কোচিং কর্তৃপক্ষের।

 শাহীন শিক্ষা পরিবারের ‘বেসিক প্রকাশনী’ কর্তৃক প্রকাশিত ২২ বছরের অভিজ্ঞতায় সমৃদ্ধ শিক্ষক দ্বারা রচিত গাইডগুলো শিক্ষার্থীদের কাঙ্খিত লক্ষ্যে পৌঁছানোর জন্য সহায়ক হিসেবে কাজ করে।

 

 দুর্বলদের অধিকতর অগ্রসর এবং মেধাবীদের সর্বোচ্চ সাফল্যে পৌঁছানোই আমাদের লক্ষ্য।

 

 

 

অন্যান্য ব্যক্তিক্রমী দিকসমূহ: 

 

 বিভিন্ন শিক্ষা প্রতিষ্ঠানে পড়ালেখার পাশাপাশি যারা ক্যাডেট কোচিং-এর সহযোগিতা নিতে ইচ্ছুক তাদের জন্য ‘শাহীন ক্যাডেট কোচিং’ শুধুমাত্র টাঙ্গাইলে নয় সমগ্র দেশেই বিকল্পহীন ও অপ্রতিদ্বন্দ্বী।

 

 বিগত বৎসরগুলোতে বাংলাদেশের ক্যাডেট কলেজগুলোতে আনুপাতিক হারে সবচেয়ে বেশি শিক্ষার্থী চান্স প্রাপ্তিই তার একমাত্র উদাহরণ।

 বৎসরের শুরু থেকে পরিকল্পিত পদ্ধতিতে গঠনমূলক ক্লাসের মাধ্যমে পাঠদান, সর্বোচ্চ মানসম্পন্ন নোট প্রদান, পড়া আদায়, ক্লাস টেস্ট, সাপ্তাহিক পরীক্ষা, মডেল টেস্ট ইত্যাদির মাধ্যমে ক্যাডেট কলেজে চান্স পাওয়ার লক্ষ্যে কোর্স সম্পন্ন করার পাশাপাশি স্ব-স্ব স্কুলের সেমিস্টার পরীক্ষার ভাল ফলাফল করার সর্বোচ্চ প্রচেষ্টা।

 সিলেবাস অনুযায়ী পড়ানো, ইংরেজি গ্রামাটিক্যাল ভিত মজবুত করার পাশাপাশি ইংরেজিতে প্রতিটি শিক্ষার্থী যেন কথা বলতে পারে এবং যে কোন শিক্ষার্থীর চেয়ে প্রতিযোগিতায় এক ধাপ এগিয়ে থাকে তার জন্য রয়েছে সপ্তাহে ১ দিন Spoken English ক্লাস-এর ব্যবস্থা।

 বিগত বছর ক্যাডেট কলেজে চান্স পাওয়া শিক্ষার্থীদের দিয়ে চলতি বছরে অধ্যয়নরত শিক্ষার্থীদের অনুপ্রেরণামূলক ক্লাস গ্রহণ ও উৎসাহমূলক অনুষ্ঠান আয়োজন করা।

 ক্যাডেট কলেজে চূড়ান্তভাবে চান্স পাওয়ানোর পাশাপাশি শিক্ষার্থীদের ইংরেজি ও গণিতে ভিত্তি মজবুত করাই আমাদের লক্ষ্য।

 শুধুমাত্র শাস্তি বা শাসন নয় প্রতিযোগিতামূলক মনোভাব তৈরি করে শিক্ষার্থীদের নিজ পাঠের প্রতি আগ্রহী করা।

 অধিকতর অগ্রসর এবং মেধাসম্পন্ন শিক্ষার্থীদের সর্বোচ্চ সাফল্য পৌঁছানোই আমাদের লক্ষ্য।

 আবাসিক ভর্তির ক্ষেত্রে লেখাপড়ার পাশাপাশি নিরাপত্তা বেষ্টনী বা খেলার পরিবেশ আছে কি না এবং সার্বিক দিক পর্যালোচনা করে সিদ্ধান্ত নিন।

মূলতঃ এ কারণেই আপনার সন্তানের জন্য শাহীন ক্যাডেট কোচিং অপরিহার্য ও আস্থাভাজন শিক্ষা সহায়ক প্রতিষ্ঠান।

 

আত্মীয় হিসেবে- অহেতুক অন্যের বাসায় সময় নষ্ট না করে নিজের এবং অন্যের সন্তানের পাঠের সহায়তা করা।

ভাই-বোন হিসেবে- পড়ার রুমে অযথা যাওয়া আসা না করা এবং পাশের রুমে গোলযোগ না করা।

 

All Rights Researved © Shaheen Education Family